মাত্র 15 দিনে দ্রুত ওজন বাড়ানোর শতভাগ কার্যকরী উপায়

0
1037
দ্রুত ওজন বাড়ানোর সহজ উপায়
দ্রুত ওজন বাড়ানোর সহজ উপায়

মানুষ স্বভাবজাত ভাবে একটু সুন্দরের পূজারী । পৃথিবীর প্রতিটি মানুষ চায় নিজের মত ফিট থাকতে । আর বর্তমানে এই ফিট থাকা নিয়ে মানুষের কৌতূহলের শেষ নেই । অন্যদিকে এই প্রতিযোগিতামূলক বিশ্বে বিভিন্ন জায়গায় গিয়ে বিভিন্ন কিছু করা প্রায় অসম্ভব তাই আপনি যদি ঘরোয়া ভাবে নিজের স্বাস্থ্য নিয়ে সচেতনতা তে চান আর ওজন কমানোর বদলে ওজন বাড়াতে চান তাহলে আপনি নিঃসন্দেহে নিচের লেখাগুলো প্রতি একটু মনোযোগ দিন ।

এসব বিষয়গুলো তৈরি করতে আপনাকে অবশ্যই খেয়াল রাখতে হবে আপনার শরীরের গ্রহণ ক্ষমতা অনুযায়ী এটি ঠিক কিনা।

ওজন কমানো যেমন কষ্টকর ঠিক তেমনি ভাবে ওজন বাড়ানো একটু কঠিন।  আর যদি আপনি এই নির্দেশনা গুলো ফলো করেন তাহলে আপনি অবশ্যই কম সময়ে আপনার ওজন বাড়াতে পারেন।

দ্রুত ওজন বাড়ে কি খেলে
দ্রুত ওজন বাড়ে কি খেলে

আমাদের নির্দেশনা গুলো ফলো  করার  ভালো দিক হলো এগুলো আপনার দৈনন্দিন জীবনে আলাদা কোনো ঝামেলা তৈরি করবে না। খুবই সহজ এবং কার্যকরী উপায়ে এগুলো আপনাকে দ্রুত উপকার দেখাবে।

তাই  দ্রুত ওজন বাড়ানোর উপায় গুলো খুব সহজভাবে নিচে উপস্থাপন করা হলো

  • ওজন বাড়ানোর আগে আপনার ওজন কেন কম তা আপনাকে অবশ্যই জানতে হবে । আপনি কি বংশগতভাবে একটু শুকনো, নাকি আপনি  খাবার কম খান বলে এই  অবস্থা নাকি আপনার বংশ অনুযায়ী আপনার শরীর স্বাস্থ্য এরকম।
  •  অথবা আপনার রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কম। তাছাড়া আপনাকে এটাও দেখতে হবে আপনার শরীরে কোন রোগ আছে কিনা, এসব লক্ষ করতে হবে যদি আপনি সুন্দর স্বাভাবিক ভাবে শরীরের ওজন বাড়াতে চান কোন ধরনের পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া ছাড়া।
এক মাসে ৫ কেজি ওজন কমানোর ডায়েট প্লান

এখন আসুন কিভাবে এসব মোকাবেলা করে আপনি সহজে আপনার ওজন বাড়াবেন তা নিয়ে একটু আলোচনা করি।

প্রথমত রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানোঃ

একটা মানুষ যথেষ্ট স্বাস্থ্যবান হওয়ার পরও রোগপ্রতিরোধ  কম হওয়ার কারণে শরীর ভেঙে যায়। তাই আপনাকে আগে শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতার দিকে খেয়াল রাখতে হবে।যদি তা কম হয় তাহলে তা বাড়াতে হবে। এটা করতে আপনাকে দুগ্ধজাত খাবার যেমন দই ,গো্‌ল,  ছানা ইত্যাদি খেতে হবে। ভিটামিন ডি এর জন্য কিছুটা সময় আপনি আপনার শরীরটাকে রোদে লাগাতে পারেন।

স্বাস্থ্য বৃদ্ধি করার উপায়
স্বাস্থ্য বৃদ্ধি করার উপায়

দ্বিতীয়তঃ শরীরচর্চাঃ

মনে করতে পারেন আপনি তো হালকা পাতলা, কেন আপনি ব্যায়াম করবেন ? কিন্তু শরীর চর্চার মাধ্যমে আপনার পেশি শক্ত হবে এবং খাওয়ার রুচি বাড়বে ফলে আপনার ওজন বাড়াতে তা আপনাকে কার্যকরী ভূমিকা দিবে

স্বাস্থ্যবান হওয়ার উপায়
স্বাস্থ্যবান হওয়ার উপায়

তৃতীয়তঃ সুখনিদ্রাঃ

শুধু নিদ্রা গেলে হবে না ,আপনাকে দেখতে হবে আপনার নিদ্রা টা সুখকর কিনা । ষ্ট্রেচ ফ্রি হয়ে আপনাকে ঘুমাতে হবে । আর অবশ্যই খেয়াল রাখবেন রাতে  তাড়াতাড়ি ঘুমাতে।

কারণ আপনার ওজন বাড়াতে ঘুম  কার্যকরী ভূমিকা রাখে। চেষ্টা করবেন কাজের ফাঁকে বিকেলে একটা ঘুম দিতে।বিকেলের ঘুম খুব তারাতারি ওজন বাদাতে সাহায্য করবে।

ওজন অনুযায়ী ডায়েট চার্ট

খাবারঃ

আপনাকে অবশ্যই কার্বোহাইড্রেট জাতীয় খাবার খেতে হবে।

এরপর আপনাকে কিছু কার্যকরী  খাবার খেতে হবে। ওজন বাড়ানোর জন্য এই  খাবারগুলো খুবই দরকার। তার মধ্যে রয়েছে দুধ আর মধু। এটা যদি মিশিয়ে আপনি খেতে পারেন তাহলে কিন্তু আপনার জন্য ওজন বাড়ানো  সহজ হয়ে যাবে ।

এক মাসে ৫ কেজি ওজন কমানোর ডায়েট প্লান

বেশি ভালো হবে যদি  প্রতিদিন ঘুম  থেকে উঠে দুটি কাজু বাদাম ও দুটি কিশমিশ খান ।বেশি করে বাদাম খান কারণ বাদাম ওজন বাড়াতে খুবই গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখে। ওজন বাড়ানোর কার্যকরী সব খাবার আপনি সব সময় আপনার সাথে রাখার চেষ্টা করবেন। যেগুলো আপনার দুই ঘন্টা পর পর খেতে হবে সেগুলো আপনি যেখানে যাচ্ছেন সেখানে আপনার সাথে করে রাখতে পারেন ।

আমরা  অনেকেই  ফাস্ট ফুড কে খুব একটা পছন্দ করি না । কিন্তু আপনি যেহেতু হালকা-পাতলা যেহেতু আপনার মোটা হওয়ার একটা আকাঙ্ক্ষা আপনার মনের মধ্যে আছে সুতরাং আপনি ফাস্টফুড জাতীয় কিছু খাবার খেতে পারেন ।  ওজন বাড়াতে এই  খাবার  গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখে । এরমধ্যে থাকতে পারে আইসক্রিম, কোলড্রিং, বার্গা্‌র, সিঙ্গারা প্রভৃতি ।

মোটা হওয়ার খাদ্য তালিকা
মোটা হওয়ার খাদ্য তালিকা

তাই আপনি চাইলে এসব খেতে পারেন তবে পরিমাণমতো।

এই  খাবারগুলো নিয়মিত খাদ্য তালিকায় রাখতে পারেন ওজন বাড়ানোর জন্য এগুলো খুবই কার্যকরী।

তার মধ্যে আছে চর্বিযুক্ত খাবার যেমন চর্বিযুক্ত মাছ, চর্বিযুক্ত মাংস, রাখতে পারেন

আর চেষ্টা করবেন আপনার প্রতিটা সবজিতে যেন আলু থাকে । কারণ আলু তারাতারি ওজন বাডাতে সাহায্য করে।

প্রতিদিন ঘুমোতে যাবার আগে দুধ এবং সকালে ডিম খান।

কিটো ডায়েট খাবার তালিকা
খাবার তালিকা

প্রতিদিন কলা খাওয়ার অভ্যাস করুন

এভাবে যদি অভ্যাস করতে পারেন তাহলে এক সপ্তাহের  মধ্যে একটি চমকপ্রদ ফলাফল পাবেন

ধন্যবাদ

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here