দীর্ঘদিন নিজের তারুণ্য ধরে রাখার উপায়

0
126
ত্বকের তারুণ্য ধরে রাখার উপায়

বৃদ্ধ না হওয়া যেন আমাদের সকলের মনের সুপ্ত বাসনা । চির তরুণ থাকার মনোবাসনা সবারই মনের মধ্যে লুকিয়ে থাকে ।

আর আমাদের মধ্যে এমন কাউকেই পাওয়া যাবে না, যে যৌবন রেখে বার্ধক্যকে পছন্দ করে।

তবে বার্ধক্য একটি প্রাকৃতিক প্রক্রিয়া। সময়ের সাথে সাথে আমরা সবাই বার্ধক্যে পৌঁছাব।

তবে দেখা গেছে কেউ কেউ বয়সের চেয়ে তুলনামূলক দ্রুত বুড়িয়ে যান। আবার কারও চেহারা দেখে বয়স বোঝার উপায় থাকে না। বয়সের তুলনায় চেহারায় তারুণ্যের ছাপ দেখা যায় বেশি ।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, চেষ্টা করলে অর্থাৎ কিছু নিয়ম মেনে চললে নিজের তারুণ্য ধরে রাখা যায়।

সহজভাবে বলতে গেলে, সেসব নিয়মের মধ্যে চললে বয়স বাড়ার প্রক্রিয়ার কারণে শরীরে যেসব পরিবর্তন হয়, সেগুলো ধীর গতির করতে সক্ষম।

আর এই প্রক্রিয়াগুলো ধীর করতে পারলেই ত্বকের তারুণ্য ধরে রাখা সম্ভব।

চলুন ত্বকের তারুণ্য ধরে রাখার উপায় গুলো দেখে নিই ।

পর্যাপ্ত ঘুমঃ

শারীরিক ও মানসিকভাবে সুস্থতা অনেকটাই নির্ভর করে ঘুমের ওপর। ভালো ঘুমে ত্বকও ভালো থাকে। ভাল ঘুমে চেহারায় ক্লান্তির ছাপ কমে যায়। তাই আমাদের ২৪ ঘণ্টায় ৮ ঘণ্টা ঘুম প্রয়োজন।

পর্যাপ্ত ঘুম

খাদ্যাভ্যাসঃ

৩০ বছরের পর ক্রাশ ডায়েট খারাপ প্রভাব ফেলে ত্বকের ওপর। চেহারা হঠাৎ করে শুকিয়ে গেলে কিছুটা স্লিম ভাব চলে আসে ঠিকই, কিন্তু চোখের চারপাশটাও কুঁচকে যায়।যার ফলে ত্বকে বয়সের চাপ পড়ে ।

আবার অনেকে ধূমপান ও মদ্যপান করে । তারুণ্যকে দ্রুত বার্ধক্যের দিকে ঠেলে দিতে এদের জুড়ি নেই। তাই ত্বকের তারুণ্য ধরে রাখতে এগুলো থেকে বিরত থাকতে হবে।

খুব দ্রুত ওজন কমানোর উপায়

ভিটামিন সমৃদ্ধ খাবারঃ

বার্ধক্যকে রুখতে সবচেয়ে বড় উপায় স্বাস্থ্যকর খাবার খাওয়া। অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট সমৃদ্ধ খাবার, পানিজাতীয় ফল (আঙুর, তরমুজ, শসা), সবজি খেতে বেশি করে । এসব খাবার বেশি খেলে দেহ সতেজ থাকে ও তারুণ্যকে ধরে রাখতে কাজ করে।

ব্যায়ামঃ

স্থাস্থ্যজ্জ্বল ত্বক পেতে প্রতিদিন ব্যায়ামের বিকল্প নাই। ইয়োগা, সাঁতার, হাঁটাহাঁটি বা  ব্যায়াম করতে হবে। প্রতিদিন না পারলেও সপ্তাহে চার থেকে পাঁচ দিন ব্যায়াম করুন। এটি ত্বক ও শরীরে তারুণ্য বজায় থাকবে।

পর্যাপ্ত পরিমাণে পানি পান করুনঃ

প্রতিদিন অন্তত দুই লিটার পানি খেতে হবে। শরীরকে আর্দ্র রাখতে সাহায্য করে পানি।  আর অতিরিক্ত ওজন ঝেড়ে ফেলতেও কার্যকর। পানি পান করার সাথে সাথে ত্বকের সতেজভাব ধরে রাখতে প্রতিদিন একটি ডাবের পানি পান করতে পারেন ।

ওজন কমানোর উপায়

নিয়মিত ত্বকের যত্নঃ

তারুণ্যদীপ্ত ত্বকের জন্য নিয়মিত ত্বক পরিষ্কার করা, ময়েশ্চারাইজার লাগানো ও ত্বকের উপযোগী ফেসপ্যাক ব্যবহার জরুরী। নিয়মিত ত্বকের যত্ন নিতে না পারলে মাসে অন্তত ১ বা্র ফেসিয়াল্ করে নিন অথবা সপ্তাহে ১ বার ত্বক স্ক্রাব করুন । এতে ত্বকের মৃত কোষ দূর হয়ে ত্বক সতেজ হয়ে ওঠবে ।

অতিরিক্ত মেকআপ না করাঃ

খুববেশি প্রয়োজন না হলে অতিরিক্ত মেকআপ ও প্রসাধনী ব্যবহার করবেন না। আর রাতে ঘুমানোর সময় অবশ্যই মেকাপ তুলে ঘুমাবেন । 

প্রতিদিন এই কিছু উপায় মেনে চললে ত্বকের তারুণ্য ধরে রাখতে পারবেন । তাই ত্বকের তারুণ্য ধরে রাখতে এই উপায় গুলো মেনে চলুন ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here