কাজু বাদামের উপকারিতা

0
730
কাজু বাদামের উপকারিতা

বর্তমানে যেভাবে ভেজাল খাবারের পরিমাণ বেড়ে যাচ্ছে, আমাদের শরীরের পুষ্টি নিয়ে খুবই বেশি উদ্বিগ্ন হয়ে যাচ্ছি। গবেষকরাও শরীরের স্বাস্থ্য নিয়ে খুব বেশি পরিমাণে চিন্তিত। 

কেননা বর্তমানে ভেজাল ছাড়া খাবার পাওয়া খুবই দুষ্কর। তাই শরীরের পরিপূর্ণ ভিটামিনের চাহিদা মেটাতে আমাদের প্রতিদিনের খাবারের পাশাপাশি এমন কোন খাবার খাওয়া দরকার যেগুলোতে প্রোটিনের পরিমাণ, ভিটামিনের পরিমাণ, আমিষের পরিমাণ পর্যাপ্ত পরিমাণে থাকে। 

তেমনি একটি খাবারের উপাদান হলো কাজুবাদাম। আজ কাজু বাদামের উপকারিতা নিয়ে আপনাদের সাথে কথা বলবো।

স্বাস্থ্য রক্ষায় কাজু বাদামের উপকারিতাঃ

এমন কিছু খাবার আছে যে খাবারের উপর আমরা চোখ বন্ধ করে ভিটামিনের চাহিদা পূরণ করতে পারি। তেমনি একটি খাবার হলো কাজুবাদাম। প্রোটিনে ভরপুর কাজু বাদামের উপকারিতার কথা বলে শেষ করা যাবে না। 

যে যে উপাদান গুলোর কারণে কাজুবাদাম আমাদের শরীরের জন্য এত বেশি উপকারী, উপাদান গুলো হচ্ছে……… ক্যালসিয়াম, ম্যাগনেসিয়াম, ভিটামিন বি কমপ্লেক্স, ভিটামিন কে, অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট ফাইবার প্রভৃতি।

কাজুবাদাম প্রোটিনের চাহিদা মেটাতে একাই একশঃ 

আমেরিকার একটি জার্নালে প্রকাশিত প্রতিবেদনে দেখা গেছে কাজুবাদামে যে পরিমাণ প্রোটিন আছে, তা আমাদের শরীরের সম্পূর্ণ প্রোটিনের চাহিদা মেটাতে সক্ষম। তাই কেউ যদি সারাদিন না খেয়ে থাকেন, যদি আপনি ৮-১০ টি কাজু বাদাম খেয়ে নেন, তাহলে আপনার শরীরের পরিপূর্ণ প্রোটিনের চাহিদা পূরণ হয়ে যাবে।ঘন 

ঘন ঘন ক্ষুধা দূরীকরণে কাজু বাদামের উপকারিতাঃ

অনেকের দেখা যায় যাদের ঘন ঘন খিদা লাগে। ঘন ঘন খিদা দূর করতে কাজুবাদাম এর ভূমিকা অনেক। কারণ কাজুবাদামে থাকা প্রচুর পরিমাণে প্রোটিন আমাদের ঘন ঘন খিদা লাগাকে দূর করে এবং কাজু বাদাম খাওয়ার পরে অনেকক্ষণ আমাদের ক্ষুদা আসেনা। কারন কাজু বাদামে প্রচুর পরিমাণে প্রোটিন থাকে, যেটি আমাদের শরীরে দীর্ঘক্ষণ পর্যন্ত মজুদ থাকে।

কাজু বাদাম খাওয়ার মাধ্যমে শরীরে অ্যান্টিবডি উৎপন্ন হয়ঃ

যাদের শরীর খুব তাড়াতাড়ি রোগে আক্রান্ত হয় বা ঋতু পরিবর্তনের সাথে সাথে যারা অসুস্থ হয়ে পড়ে, তাদের নিয়মিত কাজু বাদাম খাওয়া দরকার। কারণ কাজু বাদাম খেলে আমাদের শরীরে এক ধরনের অ্যান্টিবডি উৎপন্ন হয় যা রোগ প্রতিরোধ করতে সহায়তা করে। 

নার্ভাস সিস্টেম একটিভ রাখতে কাজুবাদাম এর কার্যকারিতাঃ

কাজু বাদামের মধ্যে থাকা ম্যাগনেসিয়াম এবং ভিটামিন বি কমপ্লেক্স শরীরের নার্ভাস সিস্টেম একটিভ রাখতে কাজ করে।  যখন আমাদের স্নায়ু দুর্বল হয়ে যায় তখন আমাদের প্রচুর পরিমাণে কাজু বাদাম খাওয়া দরকার। এই কারণে বিশেষ করে স্ট্রোকের রোগীদের কাজু বাদাম খাওয়ার পরামর্শ দিয়ে থাকেন ডাক্তারেরা।

ত্বকের যত্নে কাজু বাদাম তেলের উপকারিতাঃ 

অতিরিক্ত রোদে যাওয়ার কারণে  যাদের ত্বকে স্কিন সমস্যা দেখা যায় বা এর স্কিন ক্যান্সার হওয়ার প্রবণতা থাকে তারা নিয়মিত কাজু বাদাম খাওয়ার অভ্যাস করেন। বিশেষ করে সকাল ১০ টা ১১ টার মধ্যে কাজু বাদাম খাবেন, কারণ এ সময়ে কাজুবাদামে থাকা আয়রন, ফসফরাস, জিংক আমাদের ত্বকের কোষগুলোকে উজ্জীবিত করতে কাজ করে থাকে।

সেক্স পাওয়ার বাড়াতে কাজু বাদামের উপকারিতাঃ

যারা সেক্সে দুর্বল বা যাদের যৌন সমস্যা রয়েছে যারা দীর্ঘক্ষন মিলন করতে পারেন না, তারা অবশ্যই প্রতিদিন কাজু বাদাম খাওয়ার অভ্যাস করে ফেলেন। আপনি যদি রাত্রে ঘুমাতে যাওয়ার আগে ৫-৬ টি কাজু বাদাম খেতে পারেন, তাহলে আপনি যৌনমিলনে ভালো কিছু করতে পারবেন। আপনার শয্যাসঙ্গিনী অনেক বেশি উৎফুল্ল হবে আপনাকে পেয়ে। 

সুতরাং বন্ধুরা, কাজু বাদামের উপকারিতা জেনে চেষ্টা করবেন আপনার সমস্যা অনুযায়ী কাজুবাদাম এর মাধ্যমে সমস্যার সমাধান করতে।                                                     

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here